বুধবার | ২২শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | রাত ২:৩২
শিরোনাম :
বায়ো-ডিগ্রেডেবল প্লাস্টিক প্যাকেজিং পরিবেশবান্ধব সরকারের প্লাস্টিক খাতে ১৫% বছরে প্রবৃদ্ধির লক্ষ্য ৬ হাজার কোটি টাকা ছাড়িয়েছে ফ্লেক্সিবল প্যাকেজিংয়ের বাজার প্রতিবছরের ন্যয় এবারও শুরু হচ্ছে প্লাস্টিক, প্রিন্টিং, প্যাকেজিং (IPF) মেলা। সাফিউস সামি আলমগীর জিতেছেন এফবিসিসিআই বিজনেস এক্সিলেন্স অ্যাওয়ার্ড প্লাস্টিক ধ্বংসের উপাদান প্রকৃতিতে পাওয়া গেল দূষণরোধে বান্দরবানে এবার প্লাস্টিক বোতলের নৌকা! বাংলাদেশে প্লাস্টিক শিল্পের বিকাশের বিশাল সম্ভাবনা রয়েছে – বেঙ্গল ডিরেক্টর পরিবেশের সুরক্ষায় প্লাস্টিকপণ্য পুনঃব্যবহার বা রিসাইক্লিংয়ে জোর দিচ্ছে দেশের শীর্ষস্থানীয় শিল্পগ্রুপ প্রাণ-আরএফএল মান নিয়ন্ত্রনে টেস্টিং মেশিন
দূষণরোধে বান্দরবানে এবার প্লাস্টিক বোতলের নৌকা!

দূষণরোধে বান্দরবানে এবার প্লাস্টিক বোতলের নৌকা!

প্লাষ্টিক দূষণ রোধে ফেলে দেয়া প্লাষ্টিকের বোতল দিয়ে বান্দরবানের এক উদ্যামী যুবক তৈরি করেছে একটি নৌকা (কায়াক)। যেটি দিয়ে তিনি নদী ভ্রমনের পাশাপাশি প্লাস্টিক পণ্যের ব্যবহার কমানো এবং যততত্র প্লাষ্টিক না ফেলার জন্য সচেতনতা কার্যক্রম পরিচালনা করছে।

পরিবেশ রক্ষায় এসব ফেলে দেয়া বোতল কাজে লাগানো যায় কিনা এই চিন্তা থেকেই পরিত্যক্ত বোতল দিয়ে এবার নৌকা তৈরির কাজে নেমে পড়েছে বান্দরবান শহরের নিউ গুলশানের বাসিন্দা প্রদীপ জুবায়ের। যততত্র প্লাষ্টিক ব্যবহারের ফলে পরিবেশ দূষণ আর এই দূষণ রোধ করার স্বপ্ন নিয়ে সংগ্রহ করা কিছু বাঁশ আর শ’খানেক ব্যবহৃত প্লাস্টিকের বোতল আর টাই ক্লিপ জুড়ে দিয়ে তৈরি করা হয় একটি ছোট নৌকা (কায়াক)।

এদিকে তৈরিকৃত এই নৌকা (কায়াক) নিয়ে বান্দরবানের থানচি উপজেলার রেমাক্রি ইউনিয়ন থেকে ১১১ কিলোমিটার পাহাড়ি নৌপথে বইঠা বেয়ে বান্দরবান শহরে পৌঁছে প্রদীপ জুবায়ের ও তার সহযোগীরা।

টিমের সদস্যরা জানান, স্বল্প দূরত্বে পরিবহন ও যাতায়াতের জন্য প্লাস্টিক বোতলের তৈরি স্বল্প খরচের নৌকাগুলো বেশ কাজে আসবে। দুই থেকে তিনজন যাতায়াতের পাশাপাশি প্রায় ১০০ কেজি মালামাল পরিবহন করা যাবে নৌকাগুলোতে। তাছাড়া এই প্রতীকী নৌকা (কায়াক) তৈরির ফলে নদীসহ বিভিনস্থানে ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা প্লাষ্টিকের দূষণ অনেকাংশে রোধ করা সম্ভব হবে।

এদিকে ব্যবহৃত প্লাস্টিকের বোতল দিয়ে স্বল্প খরচে তৈরিকৃত নৌকা অবাক করেছে স্থানীয়দের। বন্যা ও জলাবদ্ধতা কবলিত এলাকায় এ ধরনের নৌকা বেশ জনপ্রিয়তা পাবে আর সেই সঙ্গে প্লাস্টিকের দূষণ থেকে পরিবেশমুক্ত থাকবে বলে প্রত্যাশা অনেকের।

প্লাষ্টিক দূষণরোধে প্রদীপ জুবায়ের এর এমন ব্যতিক্রমী উদ্যোগ আগামী প্রজন্মকে একটি সুন্দর পরিবেশ দেখাতে সক্ষম হবে বলে প্রত্যাশা স্থানীয়দের।

শেয়ার করুন





Translate Site »